দেশের তাপমাত্রা ৪০ ডিগ্রি পর্যন্ত হতে পারে

শীত এখন প্রায় শেষ পর্যায়ে আছে। ফেব্রুয়ারির শেষ দিকে শীত কমে গরম পড়া শুরু করবে। শীতকে এবারের মত বিদায় জানিয়ে বসন্তের বাতাস বইছে চারপাশে। জানুয়ারিতে তীব্র শীত পার করে বর্তমানে গরম-শীতে মিশ্র আবহাওয়া পরিস্থিতির দেখা পাচ্ছে দেশের মানুষ। তবে এর মধ্যেই তীব্র গরমের আশঙ্কার বার্তা দিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর। আগামী তিন মাস আবহাওয়ার কেমন পরিস্থিতি হতে পারে, সে বিষয়ে আগাম বার্তা দিয়েছে সংস্থাটি।
দেশে আগামী তিন মাসে শিলাবৃষ্টি, কালবৈশাখী ঝড়, মাঝারি ধরনের তাপপ্রবাহ এবং বঙ্গোপসাগরের লঘুচাপ থেকে ঘূর্ণিঝড়ের আশঙ্কা রয়েছে।

সংস্থাটি জানায়, গত জানুয়ারি মাসে সার্বিকভাবে সারাদেশে স্বাভাবিক থেকে কম ১৫.৮% বৃষ্টিপাত হয়েছে। তবে খুলনা বিভাগে স্বাভাবিক এর চেয়ে বেশি এবং ঢাকা, , সিলেট, রংপুর, রাজশাহী, চট্টগ্রাম ময়মনসিংহ ও বরিশাল বিভাগে স্বাভাবিক অপেক্ষা কম বৃষ্টিপাত হয়েছে।

এছাড়া আগামী তিন মাসের মধ্যে দেশের পশ্চিম, উত্তর, উত্তরপশ্চিমাঞ্চল, উত্তরাঞ্চল ও মধ্যাঞ্চলে ৪ থেকে ৮ দিন বজ্র ও শিলাবৃষ্টিসহ হালকা অথবা মাঝারি ধরণের কালবৈশাখী ঝড় হতে পারে।

এর বাইরেও এই সময়ের মধ্যে দেশে ৩ থেকে ৫টি মৃদু তাপপ্রবাহ বয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। আগামী তিন মাসের মধ্যে মৃদু তাপপ্রবাহ অর্থাৎ দেশের তাপমাত্রা ৩৬ থেকে ৩৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস হতে পারে। সেই সঙ্গে মাঝারি ধরণের অর্থাৎ ৩৮ থেকে ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াসে প্রবাহ বয়ে যেতে পারে বলেও জানায় সংস্থাটি।

আবহাওয়া অধিদপ্তর জানিয়েছে আগামী তিন মাসে সামগ্রিকভাবে দেশে স্বাভাবিক বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা আছে। বঙ্গোপসাগরে ২ থেকে ৩টি লঘুচাপ তৈরী হতে পারে। যার মধ্যে একটি নিম্নচাপ ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হতে পারে। তবে আগামী ৩ মাসে দিন ও রাতের তাপমাত্রা স্বাভাবিক অবস্থায় থাকতে পারে।

Leave a Comment