দেশের সকল স্কুল এন্ড কলেজ মাদ্রাসায় ৩০ এপ্রিলের মধ্যে গঠন করতে হবে অভিভাবক শিক্ষক সমিতি।

দেশের সকল স্কুল এন্ড কলেজ মাদ্রাসায় ৩০ এপ্রিলের মধ্যে গঠন করতে হবে অভিভাবক শিক্ষক সমিতি।

দেশজুড়ে মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে (স্কুল, কলেজ ও মাদ্রাসা) “অভিভাবক শিক্ষক সমিতি (PTA)” গঠনের জন্য মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর নির্দেশ জারি করেছে (মাউশি)। আগামী ৩০ এপ্রিল ২০২৪ খ্রি.-এর মধ্যে সারা দেশের মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে (স্কুল, কলেজ মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর। ও মাদ্রাসা “অভিভাবক শিক্ষক সমিতি (PTA)” গঠনের জন্য বলা হয়েছে।

গত বুধবার মাউশির স্বাক্ষরিত বিজ্ঞপ্তিতে এই নির্দেশনা দেয় (পিবিজিএসআই)’ স্কিমের পরিচালক অধ্যাপক চিত্ত রঞ্জন দেবনাথ ।

মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগের অধীন সেকেন্ডারি এডুকেশন ডেভেলপমেন্ট প্রোগ্রাম (এসইডিপি)-এর আওতাভুক্ত এবং মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর কর্তৃক বাস্তবায়নাধীন (পিবিজিএসআই)’ স্কিমের প্রস্তাবিত “অভিভাবক শিক্ষক সমিতি (PTA ) নীতিমালা ২০২৩ ” শিক্ষা মন্ত্রণালয় কর্তৃক অনুমোদিত হয়েছে।

সে অনুযায়ী আগামী ৩০ এপ্রিল ২০২৪ খ্রি.-এর মধ্যে আমাদের দেশের মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে (স্কুল, স্কুল এন্ড কলেজ ও মাদ্রাসা) “অভিভাবক শিক্ষক সমিতি (PTA)” গঠনের জন্য মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক মহোদয় নির্দেশনা জারি করেছেন।

এমতাবস্থায় নির্ধারিত তারিখের মধ্যে অনুমোদিত নীতিমালা অনুযায়ী সারাদেশের মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে (স্কুল, স্কুল এন্ড কলেজ ও মাদ্রাসা) “অভিভাবক শিক্ষক সমিতি (PTA)” গঠনের নির্দেশনা প্রদান ও পিটিএ গঠনে প্রতিষ্ঠানসমূহকে সহায়তার জন্য নির্দেশক্রমে অনুরোধ করা হলো।

অভিভাবক শিক্ষক সমিতি গঠনের কাঠামোতে বলা হয়েছে, মাধ্যমিক পর্যায়ে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ১৬ সদস্যে কমিটিতে অভিভাবক প্রতিনিধি প্রতি শ্রেণিতে ২ জন করে ১০ জন, শিক্ষক প্রতিনিধি প্রতি শ্রেণিতে একজন করে ৫ জন, একজন প্রতিনিধি থাকবে এম এম সি কর্তৃক মনোনীত। কমিটি গঠন করা হবে নিম্ন মাধ্যমিক পর্যায়ের ও কারিগরি পর্যায়ের বিষষশ সদস্য নিম্ন মাধ্যমিকের ১০ সদস্যের, স্কুল অ্যান্ড কলেজের ২২ সদস্যের ।

শিক্ষক অভিভাবক সমিতির সাধারণ সভা বছরে অন্তত ২ (দুইবার) অনুষ্ঠিত হবে। কমিটির মূল উদ্দেশ্য হচ্ছে শিক্ষক অভিভাবকদের মধ্যে সু সম্পর্ক তৈরি করে বিদ্যালয়ের কল্যাণে সকল কার্যক্রমে সহযোগিতা করা। ম্যানেজিং কমিটি ও শিক্ষক অভিভাবক সমিতি একে অপরের সম্পূরক হিসেবে স্কুলের উন্নয়নমূলক কাজে সহযোগিতা করবেন। উভয় কমিটির যুগ্ম সভা আহবান করে স্কুলের সার্বিক উন্নয়নের জন্য ভালো পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে। প্রাথমিক কমিটির নিয়মিতভাবে সভায় নির্বাহী কমিটির আমন্ত্রণে উপজেলা পর্যায়ের প্রাথমিক শিক্ষা পর্যায়ের কর্মকর্তা বৃন্দ ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও সদস্যগণ, আরো অংশগ্রহণ করতে পারবেন সরকারী দফতরসমুহের মাঠ পর্যায়ের সম্প্রসারণ কর্মীসহ অন্যান্য বিদ্যোৎসাহী ব্যক্তিগণ।

শিক্ষা প্রযুক্তি ও দেশ বিদেশের নানান রকম খবর পেতে ভিজিট করুন কলেজ টুনিভার্সিটির পেজে

Leave a Comment