কিভাবে ফেসবুক থেকে টাকা আয় করা যায়?Make money from Facebook

ফেসবুক থেকে টাকা আয় করার সেরা উপায়। আপনারা হয়তো ফেসবুক থেকে কিভাবে টাকা ইনকাম করা যায় তার উপায় খুঁজছেন। হ্যাঁ আপনাদের কথা মাথায় রেখেই youtube এর মতো কিভাবে ফেসবুকেও আপনার ইনকাম করতে পারবেন সেই বিষয়েই এই আর্টিকেল লেখা হয়েছে। এখন ফেসবুকে ও টাকা ইনকাম করা খুব সহজ এবং সম্ভব। প্রথমে আপনাকে একটি ফেসবুক অ্যাকাউন্ট খুলতে হবে এবং টাকা উপার্জনের জন্য ফলোয়ার বৃদ্ধি করতে হবে। তবে টাকা ইনকাম করার জন্য বেশ কিছু পদ্ধতি অবলম্বন করতে হবে। তাই চলুন জেনে আসা যাক কিভাবে আপনারা ফেসবুক থেকে টাকা ইনকাম করবেন।

এ সম্পর্কে আমাদের আর্টিকেলে আজ বিস্তারিত আলোচনা করা হবে।। তার আর্টিকেল কি শেষ পর্যন্ত পড়বেন মনোযোগ সহকারে। কোন বিষয় স্কিপ করবেন না।

How to make money from Facebook?

ফেসবুক হলো ইন্টারনেট জগতের এমন একটি প্ল্যাটফর্ম যা বিশ্বে সবথেকে বেশি জনপ্রিয়। ধনী থেকে গরীব সকল দেশেই সকল লোকজনে ই এখন ফেসবুক ব্যবহার করে। তারা ফেসবুক ব্যবহার করে নানান রকম খবর শেয়ার করে এবং খবর এবং তথ্য আদান প্রদান করে। এটি একটি জনপ্রিয় ওয়েবসাইট। ফেসবুকে প্রতিমাসে প্রায় ২.৯৬ বিলিয়ন ইউজার অ্যাক্টিভ থাকে। এবং ফেসবুক ব্যবহারে কারের সংখ্যা দিন দিন বেড়েই চলেছে ব্যাপক হারে।

আমরা ফেসবুক ব্যবহার করে অন্যের পিকচার কনটেন্ট ভিডিও সাহিত্য ইত্যাদি দেখে নিজেদের সময় নষ্ট করি এবং এগুলো যারা বানায় তাদের অর্থ উপার্জনের সহায়তা করি। এখন থেকে আপনারাও ইনকাম করতে পারবেন যদি আপনারা চেষ্টা করেন।

তবে একটু বুদ্ধি খাটাতে হবে এবং কিছু উপায় অবলম্বন করলেই এই বিশাল সোশ্যাল মিডিয়া ফেসবুকে কাজে লাগিয়ে আমরা ইনকাম করতে পারব।

তবে শুরুতেই এত সহজে ফেসবুক থেকে ইনকাম করা যাবে না এর জন্য অনেক পরিশ্রম করতে হবে এবং সময় দিতে হবে।

তবে সহজেই হতাশ হবেন না নিচে কিছু উপায় দেয়া হয়েছে এই উপায়গুলো অবলম্বন করতে পারলে খুব সহজে আপনারা ফেসবুকে ইনকাম করার একটি পথ খুঁজে বের করতে পারবেন

এক নজরে দেখে নিন আমাদের এই আর্টিকেলে কি কি বিষয়বস্তু রয়েছে

কিভাবে ফেসবুক থেকে আয় করা যায়?Make money from Facebook


প্রথমে ফেসবুক থেকে টাকা ইনকাম করার জন্য যা যা প্রয়োজন হবে সেগুলো আপনাদেরকে জোগাড় করে রাখতে হবে।। নয়তো আপনি কি ফেসবুক থেকে সহজে টাকা ইনকাম করতে ব্যর্থ হবেন। এই বিষয়গুলো ফেসবুকে থেকে ইনকাম করার জন্য থাকা আবশ্যক তা হল

আপনার একটি ব্যক্তিগত ফেসবুক অ্যাকাউন্ট থাকতে হবে

এবং আপনার মোবাইল বা ডিভাইসে ইন্টারনেট সংযোগের জন্য ভালো ওয়াইফাই কানেকশন বা এমবি থাকতে হবে।

আপনার ফেসবুক অ্যাকাউন্টে যথেষ্ট পরিমাণে ফলোয়ার্স থাকতে হবে।

এবং আপনার মেধা এবং ক্রিয়েটিভ ভিডিও তৈরি করতে কাজে লাগাতে হবে এবং প্রতিনিয়ত ভিডিও আপলোড করতে হবে।

উপরের লেখা বিষয়গুলো যদি আপনারা করে থাকেন তাহলে ফেসবুক থেকে সহজেই ইনকাম করতে পারবেন। আর যদি এই বিষয়গুলো না করে থাকেন তাহলে এখন থেকেই শুরু করে দিন।

ফেসবুক থেকে আয় করা সেরা কয়েকটি উপায়?

ফেসবুক থেকে আয় করার অনেক উপায় রয়েছে এর মধ্যে সেরা কয়েকটি উপায় আপনাদের জন্য লেখা হলো

ফেসবুক থেকে অনলাইন আয়ের মাধ্যমে আপনি সহজেই আপনার ক্যারিয়ার গড়ে তুলতে পারেন এবং এর জন্য কিছু নিয়ম অনুসরণ করতে হবে সেই নিয়মগুলো নিচে উল্লেখ করা হলো

১. ফেসবুকের মার্কেটপ্লেস থেকে ইনকাম

ফেসবুক মার্কেটপ্লেস হচ্ছে যে কোন প্রোডাক্ট বা সার্ভিস নির্দিষ্ট ভাবে আপনার ফেসবুক পেজে পাবলিশ করে জনগণের কাছে পৌঁছে দিতে হবে। এটা একটি বিজ্ঞাপনের মতোই কাজ করে। এটি করলে কোন ব্যক্তি নিজের প্রোডাক্ট বা সার্ভিস অনলাইনে পাবলিশ ডিসপ্লে করে এর দ্বারা ফেসবুক ইনকাম করতে পারেন।

ধরুন আপনি একটি প্রোডাক্টের বিজ্ঞাপন আপনার ফেসবুক পেজে আপলোড দিলেন এবং একটি লিংক দিয়ে দিলেন প্রোডাক্টটি কেনার জন্য কাস্টমাররা আপনার দেয়া লিংকে ক্লিক করে যত বেশি পণ্য কিনবে সেই পণ্য থেকে আপনি কমিশন পাবেন এই ভাবে টাকা ইনকাম করতে পারবেন ফেসবুক মার্কেটপ্লেস থেকে।

ভিডিও কনটেন্ট আপলোড করে টাকা আয়:

আপনি চাইলে ফেসবুকে ভিডিও কনটেন্ট পাবলিশ করেও কিংবা আপলোড করেও ইনকাম করতে পারবেন এক্ষেত্রে আপনাকে দরকার হবে ফেসবুকের ভিডিও মনিটাইজেশন। এটার জন্য আপনাকে দরকার হবে ফলোয়ার এবং কিছু নিয়ম-কানুন অনুসরণ করতে হবে মনটাইজেশন পাওয়ার জন্য একবার যদি মনিটাইজেশন পেয়ে যান তখন আপনি আপনার তৈরি করা ভিডিও ফেসবুকে আপলোড করে ইনকাম করতে পারবেন এক্ষেত্রে যত ভিউ হবে তত আপনার ইনকাম হবে।

এফিলেট মার্কেটিং করে আয়:

অ্যাফিলেট এমন একটি বিষয় যেটি সকল ব্লগার ইউটিউবারদের কাছে বেশ জনপ্রিয় বিষয়। অনলাইন ইনকাম করার জন্য এই অ্যাপিলেট একটি লাভজনক ও কার্যকরী ব্যবস্থা। বর্তমানে ঘরে বসে অনেক মানুষই এই এফিলেট মার্কেটিং করে লাখ লাখ টাকা ইনকাম করছে। অ্যাফিলিয়েট হচ্ছে এমন একটি মাধ্যম যেখানে আপনি অনলাইন থেকে বিভিন্ন ধরনের শপিং থেকে আপনার পছন্দমত বাছাই করে নিতে পারবেন প্রোডাক্ট এবং তারপর সেই প্রোডাক্টগুলো আপনার ফেসবুক পেজ কিংবা ইউটিউবে দেখিয়ে অন্যগুলো প্রমোট করে কমিশন অর্জন করতে পারবেন। এভাবে অনেক টাকা ইনকাম করা যায়। অর্থাৎ বিজ্ঞাপনের দ্বারা ইনকাম।

কিছু বিখ্যাত অ্যাফিলেট প্রোগ্রামগুলো হলো :
Daraz

Impact partnership cloud

Share asale

Amazon affiliate program

Reluten marketing

ডাইরেক লোকাল প্রোডাক্ট বিজ্ঞাপনের দ্বারা ইনকাম:

আপনার যদি ফেসবুকে অনেক ফ্যান থাকে এবং সেই হ্যান্ড পেজ থাকে তাহলে সেখানকার অনেক গ্রুপের মাধ্যমেও আপনি ইনকাম করতে পারেন। যেখানে অনেক ফলোয়ার লাইক কমেন্ট করেছে সেখানে আপনি আপনার লোকাল যেসব প্রোডাক্ট রয়েছে সেগুলো দেখে টাকা ইনকাম করতে পারেন। আপনি চাইলেই যে কোন দোকান শোরুম রেস্টুরেন্ট ইত্যাদির বিজ্ঞাপন নিজের ফেসবুক পেজ বা গ্রুপে দেখিয়ে টাকা ইনকাম করতে পারেন।

ফেসবুক পেজ বিক্রি করে টাকা ইনকাম:

বর্তমানে অনেক চাহিদা রয়েছে ফেসবুক পেজে র
কারণ facebook পেজে ভিডিও আপলোড করে অনেক টাকা ইনকাম করা যায়। অনেক ইউটিউবারও ব্লগাররা রয়েছেন যারা বিভিন্ন প্রমোশনের জন্য ফেসবুক পেজ কিনে থাকেন এবং এই ফেসবুক পেজে যদি আপনার অনেক ফলোয়ার্স থাকে তাহলে আপনি এটি অনেক টাকায় বিক্রি করে ইনকাম করতে পারেন। এক্ষেত্রে পেজ বিক্রি যাবতীয় তথ্য ফেসবুকে আপলোড করতে পারেন এবং সেখান থেকে যে কিনতে আগ্রহী সে মেসেজ দিয়ে আপনার ফেসবুক পেজটি কিনতে পারে। ফলোয়ার হিসেবে দাম নির্ধারণ করা হয়।

ফেসবুক পেজ দিয়ে ব্লগিং করে ইনকাম

আপনি ফেসবুক পেইজ দিয়ে আপনার ওয়েবসাইট এ ভিসিটর এনে গুগল থেকে ইনকাম করতে পারবেন ।

ফেসবুক গ্রুপ এর মাধ্যমে ইনকাম:

আপনার যদি প্রচুর মেম্বার ও ফলোয়ার ্স যুক্ত একটি ফেসবুক গ্রুপ থাকে তাহলে সেই গ্রুপ কে ভালো কাজে লাগে আপনি অনেক পরিমাণে টাকা ইনকাম করতে পারেন। ফেসবুক গ্রুপ থেকে টাকা ইনকামের জন্য প্রথমে আপনাকে ফেসবুক একাউন্ট ক্রিয়েট করতে হবে এবং তারপর সেই একাউন্ট থেকে গ্রুপ তৈরি করতে হবে এবং গ্রুপে সকল মেম্বারদের ইনভাইট জানাতে হবে। সেই গ্রুপে অনেক রকমের পোস্ট প্রশ্ন ভিডিও এগুলোর পাবলিশ করতে হবে। এবং ফেসবুকে যখন আপনার অনেক ফলোয়ার্স হবে তখন থেকে আপনি গ্রুপে টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

ফ্রিল্যান্সিং করে ফেসবুকে আয়:

আপনি যদি অনলাইন ভিত্তিক বিজ্ঞ হয়ে থাকেন তাহলে ফ্রান্সিং করে আপনি অনেক টাকা আয় করতে পারেন। আপনার অভিজ্ঞতা কে কাজে লাগিয়ে আপনি ফ্রান্সে করে অনেক ডলার ইনকাম করতে পারেন।
ফ্রান্সিং করা লাভ ও সুবিধা

১.যেকোনো জায়গা থেকে কাজ করা যাবে

২.গ্রাহকদের সাথে ফেসবুক কমেন্ট এবং চ্যাট এর মাধ্যমে সহজে কথা বলা যাবে।
৩. এবং সাথে সাথেই সঠিক ভাবে যদি আপনি কাজ সম্পন্ন করেন তাহলে পেমেন্ট পাবেন।
৪. এবং ফ্রান্সিং জগতে আপনি কারো চাকরি করার সুযোগ পাবেন না নিজেই নিজের মালিক হতে পারবেন।

ফেসবুক থেকে কত টাকা আয় করা যাবে?


অনেক ব্যক্তি আছেন যারা লক্ষ লক্ষ টাকা ইনকাম করেছেন ফেসবুক থেকে। এর জন্য আপনাকে ভালো কনটেন্ট আপলোড করতে হবে এবং এমন প্রোডাক্ট থাকতে হবে যেটা সহজেই লোকদের সমস্যার সমাধান করতে পারে। তাছাড়া অনেক অন্যই আছে যেগুলো প্রচার করে ফেসবুকে ইনকাম করা সম্ভব।

ফেসবুকে কত ভিউজ এ কত টাকা দেয়?

ফেসবুকে যত বেশি ভিউ হবে তত ইনকাম করা যায় ১০ হাজার ভিউতে ১০ থেকে ১৫ ডলার ইনকাম করা সম্ভব।

ফেসবুক কি লাইক কমেন্টের জন্য টাকা দেয়?

ফেসবুক কখনো লাইক বা কমেন্টের জন্য টাকা প্রদান করে না তবে লাইক কমেন্ট বেশি পড়লে পোষ্টের ভিউয়ার্স বাড়ে এই কারণে লাইক কমেন্ট ও গুরুত্বপূর্ণ।

শেষ কথা

আপনারা ইতিমধ্যে জেনে গেছেন যে কিভাবে ফেসবুক থেকে টাকা ইনকাম করা যায়। আশা করছি আমাদের এই আর্টিকেলটি আপনারা খুব মনোযোগ দিয়ে পড়েছেন এবং আপনাদের ভালো লেগেছে। আপনারা এই পোস্টটি ভালোমতো পড়লে আপনাদের উপকৃত হবে আশা রাখছি। উপরের নিয়ম গুলো অনুসরণ করলে সহজেই আপনি ফেসবুক থেকে ইনকাম করতে পারবেন। সর্বোপরি আপনাকে অনেক ধৈর্যধারণ করতে হবে ইনকাম করার জন্য। যদি আমাদের এই আর্টিকেলটি ভালো লাগে তাহলে এটা শেয়ার করতে পারেন এবং ভালো লাগলে কমেন্ট বক্সে জানিয়ে দিন । এবং আমাদের ওয়েবসাইটের অন্যান্য পোস্ট গুলো পড়ার অনুরোধ রইল। ধন্যবাদ।।

Leave a Comment